নাটোরের গুরুদাসপুরে এলাকায় আধিপত্ত বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগের দুই পক্ষের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ॥ ফাঁকা গুলি বর্ষন ও বাড়ী ভাংচুর ॥ স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আটক

নাটোর প্রতিনিধি
নাটোরের গুরুদাসপুরে এলাকায় আধিপত্ত বিস্তারকে কেন্দ্র করে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন গ্রুপ স্থানীয় নেতা বজলুর রশীদ গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়র ঘটনা ঘটেছে। সময় মতিন গ্রুপের সদস্যরা কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষন বাড়ী ভাংচুর করে। ঘটনায় ধারাবারিষা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মতিনকে আটক করেছে পুলিশ। আজ মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার ধারাবারিষা ইউনিয়েনের ঝাউপাড়া বিন্দাগ্রামে এই ঘটনা ঘটে। বর্তমানে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে এবং পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।
নাটোরের গুরুদাসপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোজাহারুল ইসলাম স্থানীয়রা জানান, করোনা ভাইরাস সংক্রমন শুরু থেকে ত্রান বিতরণ নিয়ে এলাকায় আধিপত্ত বিস্তারকে কেন্দ্র করে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন স্থানীয় আওয়ামীলীগ কর্মি বজলুর রশীদের সাথে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে মঙ্গলবার দুপুরে চেয়ারম্যান গ্রুপ বজলুর রশীদ গ্রুপের সমর্থকদের মধ্যে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে চেয়ারম্যান গ্রুপের সমর্থকরা কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষন করে। এসময় উভয় পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পরে মতিন গ্রুপের সমর্থকরা বজলুর রশীদের বাড়ীতে হামলা করে ভাংচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে এবং এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করে। ঘটনায় ধারাবারিষা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মতিনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তবে ঘটনাস্থল থেকে গুলির খোসা উদ্ধারের বিষয়টি অস্বীকার করে এবং ক্যামেরায় কোন বক্তব্য দিতে রাজী হয়নি পুলিশ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য