৬ ডিসেম্বর কুড়িগ্রামের রাজারহাট হানাদার মুক্ত দিবস


রাশেদ কুড়িগ্রামঃ

আজ ৬ ডিসেম্বর কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলা হানাদার মুক্ত দিবস। ১৯৭১ সালের এই দিনে বীর মুক্তিযোদ্ধারা পাকিস্তানী সেনাবাহিনীকে পরাজিত করে কুড়িগ্রামের রাজারহাটকে পাক-হানাদার মুক্ত করে। স্বাধীনতা যুদ্ধের চুড়ান্ত বিজয় অর্জিত না হলেও এ অঞ্চলে সেদিন উদিত হয় স্বাধীন বাংলার পতাকা।

সোমবার রাজারহাট হানাদার মুক্ত দিবস উপলক্ষে ঠাটমারী বদ্ধভূমি স্মৃতি স্তম্ভে পুষ্পাঞ্জলি অর্পন, পতাকা উত্তোলন, দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার নুরে তাসনিম, উপজেলা সহকারি কমিশনার ভূমি আকলিমা বেগম, রাজারহাট থানার অফিসার ইনচার্জ রাজু সরকার, 

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান জুয়েল, সাবেক উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রজব আলী,জেলা পরিষদ সদস্য আব্দুস ছালাম, বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম(বিএমএসএফ) রাজারহাট উপজেলা শাখা,সভাপতি আনিছুর রহমান, 

সাধারন সম্পাদক এনামুল হক,বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ রাজারহাট উপজেলা শাখার যুব ও  ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক জাহানুর আলম সোহেল সাংগঠনিক সম্পাদক রাশেদ,সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আনিসুর রহমান সহ আরো অনেকেই। দিনটি স্মরণ করে রাজারহাট উপজেলাবাসির দাবি,জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন পূরণ ও গণতন্ত্রের বিকাশসহ বাঙালি জাতি মুক্তিযুদ্ধের সুফল ভোগ করুক এটাই আমাদের কাম্য। 

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) রাজারহাট উপজেলা শাখার  পক্ষ থেকে, ঠাটমারী বদ্ধভূমি স্মৃতি স্তম্ভে পুষ্পাঞ্জলি অর্পন করা হয়। এবং বাংলাদেশ স্বাধীনতার যুদ্ধে শহীদ ও বীর মুক্তিযোদ্ধার প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়। এ সময় মফস্বল সাংবাদিক ফোরামের পক্ষ থেকে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে বদ্ধভুমি  স্মৃতি স্তম্ভে রাতের বেলা আলোকিত করার জন্য দুইটি সোলার ল্যাম্পে বসানোর আবেদন জানানো হয়।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য