পঞ্চগড়ে আলুর পরিচর্যায় ব্যস্ত কৃষক-কৃষাণি ‘ সবুজে সবুজে ভরে গেছে মাঠ-প্রান্তর


মো. কামরুল ইসলাম কামু, পঞ্চগড়ঃ
  

কৃষি উৎপাদনে কৃষকরাই প্রাণ শক্তি। এমনটা দেখা যায় মাঠে-ময়দানে তাকালে। আলু, বেগুন,মুলা সহ সব সবজিই তাদের নিবিড় পরিচর্যায় মাঠ ভরে ওঠে। এবারে বাজারে হঠাৎ করেই আলুর দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় অনেক কৃষক আলু আবাদে জোড় দিয়েছে। 

সেই আলুর চাহিদা মেটাতে পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলার বেংহাড়ি ইউনিয়নের পুঠিমারি মিশন এলাকার একজন কৃষক নাম তার জয়ন্ত বর্মণ। তার সাথে মাঠে কথা হয় ‘ তিনি জানান এবারে আলুর দাম বেশী হওয়ায় তিন বিঘা জমিতে আলু লাগিয়েছেন। সে কারনে পরির্চযায় ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন। কথা হয় ওই উপজেলার মন্ডল হাট গ্রামের আল-আমিন নামে এক কৃষকের তিনিও তিনবিঘা জমিতে আলু লাগিয়েছেন। 

সরজমিনে দেখা গেছে ‘ পুঠিমারি মিশন এলাকার শত শত জমিতে আলুর পরিচর্যা করছেন কৃষক-কৃষাণি। এছাড়াও দেশের অন্যান্য জায়গায় মতো পঞ্চগড়েও আলুর চাহিদা এখন অনেক বেশি। জনসংখ্যার বৃদ্ধির সাথে সাথে আলুর চাহিদা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। স্থানীয় চাহিদা মিটিয়ে অন্য জেলাতেও পঞ্চগড়ের উৎপাদিত আলু যায়। পাশাপাশি হিমাগার গড়ে ওঠায় কৃষক সহ ব্যবসায়ীরা আলু রাখেন এসব হিমাগারে। 

পঞ্চগড় জেলার দেবীগঞ্জ উপজেলায় আলুর আবাদ বেশী হয় বলে জানা যায়। দেবীগঞ্জ উপজেলার দন্ডপাল ইউনিয়নের মৌমারি,  লক্ষীরহাট   দেবীডুবা ইউনিয়নের বিস্তৃন এলাকায় আলুর আবাদ হয়েছে। এছাড়া শালডাঙ্গা ,দন্ডপাল ,পাঁচপীর ওসোনাহার এবং আটোয়ারী উপজেলার বর্ষালুপাড়াসহ পঞ্চগড় জেলার সদর সহ জেলার বিভিন্ন এলাকায় আলুর আবাদ হয়েছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায় ‘ এবারে ৯ হাজার ৭৫০ হেক্টর জমিতে আলুর আবাদ হয়েছে। গতবারে ছিলো ৯ হাজার ৬৫০ হেক্টর জমি।জেলা কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের অতিরিক্ত উপ-পরিচালক আব্দুল মতিন বলেন ‘ আলুর বেশ কয়েকটি ভ্যারাইটি আছে। যেমন; রমানা, কাডিনাল ,ডায়মন্ড গ্রানোলা উল্লেখযোগ্য। এরমধ্যে রমানার চাহিদা বেশি। রমানা দেখতে দেশী আলুর মতো।তিনি বলেন ‘ স্থানীয় চাহিদা পূরন করে পঞ্চগড়ের আলু বাইরে যায়।

এদিকে পঞ্চগড়ের স্থানীয় বাজারে নতুন আলু বিক্রি হচ্ছে। তার মধ্যে কাডিনাল আলু পরিপক্ক। তবে দেশী লাল আলু পাওয়া গেলেও তার মধ্যে পরিপক্কতা নেই।তারপরেও চাহিদা বেশ।এই আলু বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৫০ টাকা।এছাড়া স্থানীয় ভাবে সবজির উৎপাদন দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। সবুজে ভরে উঠছে বিস্তৃন জমি। এছাড়া পঞ্চগড় সদর উপজেলার হাড়িভাসা , অমর খানা সহ দেবীগঞ্জ ও বোদা উপজেলার বিভিন্ন জায়গায় চাষ হচ্ছে রসুন হলুদ- ও তেজপাতার। সবুজে সবুজে ভরে গেছে মাঠ-প্রান্তর।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য