কোচিং বানিজ্য অনৈতিক, এটা বন্ধ করার জন্য শিক্ষা মন্ত্রনালয় উদ্যোগ নিয়েছে॥ স্থানীয় প্রশাসনকেও পদক্ষেপ নিতে হবে - নাটোরের গুরুদাসপুরে শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি, এমপি

মোঃ শরিফ,নাটোর
নাটোরে শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি বলেছেন, কোন শিক্ষক শ্রেণী কক্ষে না পড়িয়ে যদি বাড়ীতে বা বিদ্যালয়ে অর্থের বিনিময়ে কোচিং করান তা সম্পুর্ন অনৈতিক। এই কোচিং বানিজ্য বন্ধ করার জন্য শিক্ষা মন্ত্রনালয় উদ্যোগ নিয়েছে। এব্যাপারে স্থানীয় প্রশাসন সহ সকল অভিভাবককে পদক্ষেপ নিতে হবে। কোন ভাবেই কাউকে কেউ ছাড় দিবেন না। সবার সহযোগিতা ছাড়া শুধু শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের পক্ষে কাজ করা সম্ভব নয়। যে মানুষটার জন্ম না হলে এই স্বাধীন বাংলাদশে হতো না। আজ আমরা যে যখোনে দাঁিড়য়ে রয়েছি। সেখানে কেউ এভাবে দাঁড়াতে পারতাম না। তার সম্পর্কে সকলকে জানতে হবে।একসময় এই দেশ পরিচালনা করছে বিএনপি-জামায়াত সরকার। তখন সবার কি অবস্থা ছিলো? কেউ নিরাপদে ছিলাম না। বছররে প্রথম দিন কোন শিক্ষাথী কি হাতে বই পেতো? কিছুই পায়নি, পেয়েছে শুধু সন্ত্রাসের রাজত্ব। দিনে দুপুরে আগুন দিয়ে মানুষ পুড়িয়ে মেরেছে। গাড়ী পুড়িয়ে, ট্রেন পুড়িয়ে দেশের সম্পদের ক্ষতি করেছে। শিক্ষিত বেকার ্্তৈরি করেছে। দেশকে দুর্নীতির আখড়া তৈরি করেছিল। দেশের মানুষ যখন ওই সরকারের র্কমকান্ডে অতিষ্ট হয়ে পরেছে ঠিক তখনই বাংলাদেশকে বাঁচাতে শেখ হাসিনাকে দেশের দায়িত্বভার দেওয়ার জন্য র্গজে উঠলেন আপনারা। আপনারা নির্বাচনে ভোট দিয়ে তাদের হাত থেকে ক্ষমতা কেড়ে নিলেন। আপনারা ভোট দিলেন বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে নৌকা র্মাকা প্রতিকে। আপনাদের ভোটে শেখ হাসিনার সরকার গঠন করার পর আপনাদের বঙ্গবন্ধুর কন্যা প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকার গঠনের পর শুধুমাত্র বাংলাদেশের মানুষের জন্য কাজ করে চলেছেন। সেই লক্ষ্যে দেশকে আলোকিত করতে ঘরে ঘরে আজ সরকার বিদ্যুৎ পৌছে দিয়েছে।  প্রতিটি মহল্লা বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত করেছে। দেশের প্রতিটি শির্ক্ষাথী এখন বিদ্যুতের আলোয় লেখাপড়া করছে।  তরুন প্রজন্মকে আইটি প্রশিক্ষন,নারীদের জন্য নানা পরিকল্পনা হাতে নিয়েছেনে। এরমধ্যে অনেক পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করেছেন। তিনি গুরুদাসপুেরর কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে উন্নয়ন করার জন্য বিভিন্ন সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন। শিক্ষা মন্ত্রী রবিবার দুপুরে নাটোরের গুরুদাসপুরের কল্লোল ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে গুরুদাসপুর বড়াইগ্রাম উপজেলার এসএসসি এইচএসসি ২০১৮-২০১৯ সালের জিপিএ- প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন। কল্লোল ফাউন্ডেশনের সভাপতি কোহেলি কুদ্দুসের সভাপতিত্বে গুরুদাসপুর মডেল সরকারী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠানে অন্যন্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি স্থানীয় সংসদ সদস্য অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস, সংরক্ষিত মহিলা আসন ২৮ বরিশাল সৈয়দ রুবিনা আক্তার এমপি , স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সাইদুর রহমান, নাটোরের জেলা প্রশাসক মোঃ শাহরিয়াজ,পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা,উপজেলা চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন,উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তমাল হোসেন সহ আওয়ামী লীগ তার বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মিরা। অনুষ্ঠানে দুইটি উপজেলার ৬৬৪ জন কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা পিএসসি এবং জেএসসি বৃত্তি প্রাপ্ত ২০ জন শিক্ষার্থীদের বৃত্তি প্রদান করা হয়।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য