বীরগঞ্জে দুঃস্কৃতিকারীদের হাত থেকে মুক্তি পেতে বাদীপক্ষ বিচারকের দ্বারে দ্বারে


মোঃ তোফাজ্জল হোসেন, বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ
 

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে দুঃস্কৃতিকারীদের হাত থেকে মুক্তি পেতে বাদী তানজিমুল বিচারকের দ্বারে দ্বারে ঘুরছে। এজাহার সুত্রে জানা যায়, গত ২৯/০১/২০২১ তারিখ সন্ধ্যায় বীরগঞ্জ উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের লক্ষীপুর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে বাইসাইকেল যোগে কাহারোল থানাধীন জয়নন্দ বাজারে যাওয়ার পথিমধ্যে রাত আনুমানিক সাড়ে ৮টার সময় লক্ষীপুরের তপনের বাড়ির দক্ষিণে পাকা রাস্তায় পৌঁছালে । 

একই গ্রামের মৃতঃ কফিল উদ্দীনের ছেলে খাদেমুল ইসলাম (৩০) ও শনি মোহাম্মদের ছেলে আমির উদ্দীন (৩৮) তার পথরোধ করে ও পথরোধের কারণ জিজ্ঞেস করলে তাঁদের হাতে থাকা লোহার রড দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্য তানজিমুলের মাথা সহ এলোপাথাড়ি ভাবে আঘাতে রক্তাক্ত গুরুতর জখম করে এবং  গলা চেপে শ্বাসরোধের চেষ্টা ও অসৎ উদ্দেশ্য পকেট থেকে নগদ ৪০হাজার ৩০টাকা কেড়ে নেয়। 

এসময় প্রাণ রক্ষার্থে ডাক চিৎকারে একই গ্রামের তপন, অলকা ছাড়াও আরও অনেকে এগিয়ে আসলে বিবাদীরা পরবর্তীতে সুযোগ পেলে প্রাণে মেরে ফেলবে মর্মে প্রকাশ্যে বিভিন্ন প্রকারের ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদশর্ন করে পালিয়ে যায়। এরপর আহত তানজিমুল প্রথমে বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরবর্তীতে দিনাজপুরে চিকিৎসা শেষে বীরগঞ্জ থানায় বাদী হয়ে মামলা দায়ের করে। যার নং ১২, তারিখ ১২/০২/২০২১ইং। 

উল্লেখ্য যে, ইতিপূর্বে ২৪ই নভেম্বর ২০১৯ ইং তারিখে রাত আনুমানিক সাড়ে ৯টায় বোচাগঞ্জ থানাধীন ২নং ইশানিয়া ইউনিয়নের অন্তর্গত চৌরঙ্গী বাজারের ডিস লাইন ব্যবসায়ী তানজিমুল ইসলামের ইলেকট্রনিক মালামাল দোকানে হামলা চালিয়ে খাদিমুল, মৃত সমির উদ্দিন ওরফে শনির ৩ ছেলে আজিজুল ওরফে সিংহ (৫৫), আমির উদ্দিন (৫০), মসলিম উদ্দিন (৫৫) সহ অজ্ঞাতনামা ৪/৫ জন পূবপরিকল্পিতভাবে পরস্পর শলাপরামর্শ করে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে মারপিট করে ব্যবসায়ীক নগদ ২ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা, ২২ হাজার টাকা মূল্যের মোট ৩ টি স্কিনটার্চ মোবাইল ও ব্যবহৃত লাল কালো রংয়ের ১২৫ সিসি বাজাজ গ্লামার মোটরসাইকেলসহ ব্যবসায়ীকে অপহরণ করে রনটি গ্রামের জনৈক জসিম চৌধুরীর বাড়িতে নিয়ে গেলে পালিয়ে তানজিমুল কৌশলে পালিয়ে নিজের  প্রান রক্ষা করে । 

৩ দিন ঠাকুরগাঁও জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে কিছুটা সুস্থ হয়ে বোচাগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করে, যার নং- ০৩, তাং- ২১/০১/২০২০ ইং। উল্লেখিত মামলার পরিপ্রেক্ষিতে এজাহারে বর্ণিত মোটর সাইকেলটি পুলিশ কতৃক জয়নন্দবাজার এলাকা থেকে উদ্ধার করা হলে আদালতের মাধ্যমে সেটি ফিরে পান তানজিমুল। পরবর্তীতে প্রতিপক্ষের ষড়যন্ত্রের শিকার হয়ে গনউপদ্রবের মিথ্যা অভিযোগের প্রেক্ষিতে ২৬ জানুয়ারী ২০২০ ইং নিরপরাধ তানজিমুল  মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে দন্ডবিধি ১৮৬০ এর ২৯১ ধারায় ১ মাসের কারাদণ্ড ভোগ করেন। 

বর্তমানে একটি মামলা চলমান অবস্থায় একই চক্রের যোগসাজসে মিলিত অপরাধীদের কার্যকলাপে বাধ্য হয়ে আনিত অপর একটি মামলাসহ চলমান মামলাগুলো চালাতে হিমসিম খাচ্ছেন তানজিমুল। এ ব্যাপারে তানজিমুল ইসলাম অভিযোগ করে জানান, সম্প্রতি নিষিদ্ধ জামাত - বিএনপি জোটের মোঃ আমির উদ্দীন ও খাদেমুল গ্রেফতার হলেও অপরাপর দূঃস্কৃতিকারীরা একই উদ্দেশ্যে তার পরিবারের সদস্যদের বিভিন্ন ধরনের ক্ষতিসাধনের পায়তারাসহ প্রাননাশের অপচেষ্টায় লিপ্ত থেকে ও দায়েরকৃত মামলা উঠিয়ে নিতে হুমকি ধামকি প্রদশর্ন করছে। পাশাপাশি চলমান মামলাগুলোর ব্যয়ভার বহন করা  সম্ভবপর না হওয়ায় এহেন অবস্থায় ক্ষতিগ্রস্ত, নির্যাতিত, অসহায় তানজিমুল ও তার পরিবার নিজেদের জান- মাল রক্ষার্থে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সহ মহামান্য আদালতের আশু দৃষ্টি কামনা করেছেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য