মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রত পঞ্চগড় সদর উপজেলার ২০৮ গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে পাকা বাড়ি


মো. কামরুল ইসলাম কামু, পঞ্চগড়ঃ 
 

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুত প্রতিটি ঘরহীন মানুষকে ঘর তৈরি করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী মুজিববর্ষ পালন উপলক্ষে সরকারের একটি বড় কর্মসূচির অংশ হিসেবে সারা দেশের ৮ লাখ ৮২ হাজার ৩৩টি ঘরহীন পরিবারকে আধপাকা টিন-শেড ঘর নির্মাণ করে দেয়ার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। 

এরই অংশ হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর আওতায় প্রাথমিক পর্যায়ে পঞ্চগড় সদর উপজেলা বিভিন্ন ইউনিয়নে ‘ক’ তালিকাভূক্ত ২০৮ ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য তৈরী করা হচ্ছে পাকা বাড়ি। চলতি মাসের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যে এসকল ঘর নির্মাণের কাজ শেষ হবে বলে আশা প্রকাশ করেছে উপজেলা প্রশাসন।  এজন্য ৩৫ কোটি ৩৬ লাখ টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।

পঞ্চগড় সদর উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, এই উপজেলায় জমিও নেই বাড়িও নেই এমন ‘ক’ তালিকাভূক্ত পরিবারের সংখ্যা ৯৯৯ জন্য। এর মধ্যে প্রাথমিক পর্যায়ে ২০৮ জনকে সরকারি খাস জমিতে তৈরী করে দেয়া হচ্ছে পাকা বাড়ি। সংযুক্ত শৌচাগারসহ দুইটি কক্ষ বিশিষ্ট ওই পাকা ঘরে থাকছে রান্নাঘর ও বারান্দা। সুপেয় পানির জন্য থাকছে টিউবওয়েল। যা একটি ছোট পরিবারের থাকার জন্য যথেষ্ট। প্রতিটি পাকা বাড়ি নির্মাণে বরাদ্দ করা হয়েছে এক লাখ ৭১ হাজার টাকা। এসকল বাড়ির নির্মাণ কাজ দ্রুত এগিয়ে নিচ্ছে উপজেলা প্রশাসন। 

চলতি মাসের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যে এসকল বাড়ির নির্মাণ কাজ শেষ করে হস্তান্তরের জন্য প্রস্তুত করা হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছে তারা। পঞ্চগড় সদর উপজেলার হাফিজাবাদ ইউনিয়নে বিলুপ্ত গারাতি ছিটমহলের যোগিপাড়া গ্রামের দিনমজুর বিল্লাল হোসেন বলেন, আমার নিজের কোন জমি নাই। মানুষের জমিতে একটি খড়ের ঘর তুলে স্ত্রী-সন্তানদের নিয়ে কোনমতে সংসার করছি। ছিটমহল বিনিময় করে প্রধানমন্ত্রী আমাদের স্বাধীন দেশে বসবাস করার সুযোগ করে দিয়েছেন। এখন তিনি আমাদের পাকা ঘর তৈরী করে দিচ্ছেন। তিনি গরিবের বন্ধু। আমরা দোয়া করছি মহান আল্লাহ তায়ালা যেন তাঁকে বহুদিন বেঁচে রাখেন। তাহলে দেশ উন্নতির দিকে যাওয়ার পাশাপাশি আমরা গরিব মানুষরা অনেক উপকৃত হব।  

পঞ্চগড় উপজেলা নির্বাহী মো. আরিফ হোসেন বলেন, মুজিববর্ষ উপলক্ষে পঞ্চগড় সদর উপজেলায় প্রাথমিক পর্যায়ে ‘ক’ তালিকাভূক্ত ২০৮ জন ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের জন্য পাকা বাড়ি তৈরী করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে প্রায় ৭০ ভাগ কাজ শেষ হয়েছে। আগামী ১৫ জানুয়ারীর মধ্যে আমরা এসকল বাড়ির কাজ শেষ করতে পারব। নির্ধারিত ডিজাইন, প্লান অনুযায়ী গুণগতমান বজায় রেখে এসব ঘর নির্মাণ কাজ শেষের পথে। পরবর্তিতে বরাদ্দ সাপেক্ষে তালিকাভূক্ত বাকি পরিবারগুলোর জন্য ঘর তৈরী করা হবে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য