জেলা পুলিশ কুড়িগ্রামের সহায়তায় হারানো শিশু মোফাজ্জল ভারতের জয়গাঁও থেকে ফিরলো মা'র কোলে


নয়ন দাস, কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ

গত ২২/১০/২০২০ইং কুড়িগ্রাম সদর থানায় এসে মরিয়ম বেগম(৪২) দুঃখ ভারাক্রান্ত মনে জানান যে  ০৩ বছর আগে স্বামী-সোরাবদি, বাকপ্রতিবন্ধী ছেলে মোফাজ্জল হক(১৫) তার বাবার সাথে ঢাকা যাওয়ার পথে বগুড়া হতে নিখোঁজ হয়। স্থানী ঠিকানা গ্রামঃমাস্টার পাড়া মাধবরাম, ইউনিয়ন- ভোগডাঙ্গা, থানা+জেলা-কুড়িগ্রাম  সহ বিভিন্ন স্থানে অনেক খোঁজাখুঁজি করেও কোথাও কোনো কূল-কিনারা পাননি।

কোন এক মাধ্যমে জানতে পারেন তার ছেলে ভারতে জয়গাঁও তে আছেন। অতঃপর তিনি  থানায় এসে সাহায্য চান। বিষয়টি অবগত হয়ে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত),  নারী শিশু বয়স্ক ও প্রতিবন্ধী  ডেক্স অফিসার, অফিসার ইনচার্জ,কুড়িগ্রাম থানা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) জনাব উৎপল কুমার রায় নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে বিষয়টি পুলিশ সুপার কুড়িগ্রাম কে জানালে তিনি দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ার জন্য নির্দেশ দেন। 

এ নিয়ে কুড়িগ্রাম থানা  হারানো জিডি নং-৯৬০ তারিখ ২২-১০-২০২০ ইং করা হয়।বিষয়টি আমলে নেবার পর কুড়িগ্রাম থানা কর্তৃক ভারতের একটি নম্বরে যোগাযোগ করে জানা যায় শিশু মোফাজ্জল  হক Jaigaon bless Foundation rehabilitation centre,Ramgaon, Near fire station New road Jaigaon 736182 ঠিকানায়, জনৈক দধিরাম এর তত্ত্বাবধানে  আছে। 

বিষয়টি মরিয়ম বেগম কে জানিয়ে  সংশ্লিষ্ট দপ্তর গুলোতে যোগাযোগ করে তাকে সার্বিক ভাবে সহযোগিতা করা হয়। প্রতীক্ষার প্রহর যেন শেষ হয়না এর মাঝে সন্তান হারানো মা বারবার এসে জিজ্ঞাসা করেছেন আর কতদিন  লাগবে, তার সন্তান কে ফিরে পেতে। অবশেষে প্রতীক্ষার  ফলস্বরূপ  যশোর জেলার বেনাপোল সীমান্ত হতে গত ২৫ জানুয়ারি ২০২১ ইং মরিয়ম বেগম তার সন্তান মোফাজ্জল হককে ফিরে পান। আজ সেই সন্তানকে নিয়ে থানা এসেছিলেন  হাসিমুখে ধন্যবাদ জানাতে এ সংক্রান্তে কুড়িগ্রাম থানার জিডি নাম্বার ১২৭৬ তারিখঃ২৭-০১-২০২১ করা হয়। সব কিছুর পর মা ও ছেলের হাঁসি মুখ,  এইতো পাওয়া আমাদের।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য