কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে গৃহবধূকে ধর্ষণের ঘটনায় মামলা

রাশেদ কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে এক গৃহবধূকে ধর্ষণের ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার রাতে ধর্ষণের শিকার ওই নারীবাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন।

অভিযুক্ত আতাউর রহমানের (২৬) বাড়ি ওই উপজেলার বড়ভিটা ইউনিয়নের পূর্বধনীরাম গ্রামে। মামলা দায়েরের পর বৃহস্পতিবার সকালে নির্যাতিত ওই গৃহবধূর জবানবন্দি রেকর্ড করার জন্য তাকে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ।

স্থানীয়রা জানায়, ধর্ষণের শিকার ওই গৃহবধূর স্বামী দীর্ঘদিন ধরে কাজ করার সুবাদে কুমিল্লায় বসবাস করেন । এ সুযোগে প্রায়ই তাকে উত্যক্ত করে আসছিলেন একই এলাকার জাইদুল ইসলামের ছেলে আতাউর রহমান । বিষয়টি এর আগে এলাকার বেশ কয়েকজনকে জানান ওই ভুক্তভোগী। অভিযুক্ত আতাউরের কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১২ টার দিকে ওই গৃহবধূর ঘরের দরজা কৌশলে খুলে মুখ চেপে ধরে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ ও শারীরিকভাবে আঘাত করেন আতাউর । 

এ সময় ওই নারীর চিৎকারে তার শাশুড়ি ছুটে এসে ধর্ষককে জাপটে ধরার চেষ্টা করেন। পরে আতাউর গৃহবধূর শাশুড়িকে মারপিট করে কৌশলে পালিয়ে যান। এ নিয়ে বুধবার দিনভর স্থানীয় মাতব্বররা দফায় দফায় মীমাংসার চেষ্টা করলেও সাড়া দেয়নি নির্যাতিতের পরিবার। পরে রাতেই ধর্ষণের শিকার নারী বাদী হয়ে ফুলবাড়ী থানায় মামলা দায়ের করেন।

বড়ভিটা ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য (ওয়ার্ডের মেম্বার ) উজির আলী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি। সেই সাথে অভিযুক্ত যুবকের উপযুক্ত বিচারের দাবি করছি।

ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ রাজীব কুমার রায় জানান, ধর্ষকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী। তার জবানবন্দি রেকর্ড করার জন্য সকালে তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য