সুন্দরগঞ্জে স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন স্বামী গ্রেফতার

আঃ মতিন সরকার, গাইবান্ধাঃ 
গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় পারিবারিক কলহের জের ধরে এক সন্তানের জননী রোজিনা বেগম (২৫) নামের এক গৃহবধুকে খুন করেছে তার স্বামী ছামিউল ইসলাম। গত শুক্রবার (২৪ জুলাই ) উপজেলার বামনডাঙ্গা ইউনিয়নের পাইটকা পাড়া গ্রামে ঘটনাটি ঘটেছে। 

পুলিশ রাতেই পাষন্ড স্বামী ছামিউল ইসলামকে গ্রেফতার করেছে। ছামিউল ওই গ্রামের রহমান মিয়ার ছেলে।  জানা গেছে, দীর্ঘ ১০ বছর আগে একই ইউনিয়নের রামধন গ্রামের ওয়ারেস আলীর মেয়ে রোজিনার সাথে ছামিউলের বিয়ে হয়। বিয়ের পর অভাব অনটনের সংসারের ব্যয়ভার বহন করতে কিছুদিন আগে ঢাকায় যায় তারা। 

সেখানে রোজিনা পোশাক শ্রমিক এবং ছামিউল কাঠমিস্ত্রীর কাজ করতেন। এরই এক পর্যায়ে রোজিনার আচারনে স্বামীর মনে সন্দেহ সৃষ্টি হয় এবং তাদের মধ্যে মতবিরোধ দেখা দেয়। গত একমাস আগে রোজিনা ঢাকা থেকে তার বাবার বাড়িতে চলে আসে । এরপর ছামিউল বাড়িতে এসে স্থানীয় সুধীজনের শালীশের মাধ্যমে তার স্ত্রীকে বাড়িতে নিয়ে আসে। 

শুক্রবার সকাল থেকে তাদের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। রাতে স্বামী মাছ শিকারের কথা বলে স্ত্রীকে সাথে নিয়ে বাড়ির পাশের বিলের পাড়ে নিয়ে সেখানে ছুরি দিয়ে কুপাতে থাকে। রোজিনার চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে গিয়ে পানিতে তার মরাদেহ দেখতে পায়। এর ফাঁকে ছামিউল পালিয়ে যায়। 

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশ  উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে এবং রাতে অভিযান চালিয়ে পাষন্ড স্বামী ছামিউলকে গ্রেফতার করে। রাতে পুলিশ ছামিউলকে সাথে নিয়ে খুন করা ছুরি উদ্ধার করে। 

গতকাল শনিবার (২৫ জুলাই) লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। থানা অফিসার ইনচার্জ আব্দুল্লাহিল জামান জানান আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এনিয়ে নিহতের বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা দিয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য