উখিয়ায় মালিক ও ভাড়াটিয়া মানছে কি সরকারের নির্দেশ? করোনা আতংকে আমরা!

তানভীর শাহরিয়ার, উখিয়া।
বিশ্বজুড়ে মহামারি করোনা ভাইরাস Covid-19 খেড়ে নিচ্ছে হাজার হাজার মানবের তাজা প্রাণ। আর ভয়াবহতে আমাদের দেশর- রক্ষা মিলেনি। ভাইরাসের আক্রমণ ঠেকাতে বির্শ্বের পাশাপাশি পুরো দেশব্যাপী চলছে লকডাউন। ঠিক মহামারির সময়ে সরকার প্রত্যেক মানুষকে ঘরে থাকার নির্দেশ দিলেও তা মানছে না উখিয়ার কতিপয় মালিক ভাড়াটিয়ারা! কক্সবাজারের উখিয়া-টেকনাফের রোহিঙ্গা শিবিরে কর্মরত এনজিও কর্মীরা বেশিরভাগ উখিয়া সদর, ঘিলাতলি, দারোগাবাজার, মুহুরিপাড়া, উখিয়া থানা রোড়, হাজীরপাড়া, কোটবিল্ডিং সড়ক, মালভিটা পাড়া, কোটবাজারস্থ আবাসিক, কুতুপালং, বালুখালী, থাইংখালী, পালংখালীসহ একাধিক এলাকায় উত্তরবঙ্গ থেকে আসা অন্তত হাজার এনজিও কর্মী অবস্থান করে আসছে। দুঃখের বিষয় এনজিও কর্মীদের প্রশাসন এখনো নিজ এলাকায় পৌছাতে পারিনি। যদিও কোন বাইরের লোকের কারণে উখিয়াতে করোনা আক্রমণ করে সে দায়ী কে নিবে???? ইতিমধ্যে উখিয়াতে সামাজিক ভাবে লকডাউন চলছে। আর লকডাউনের আওতায় আছে সদরের ঘিলাতলি পাড়া রাজাপালং শেখ পাড়ারস্থ হিন্দু পাড়াটি। প্রশাসনকে অনুরোধ জানাচ্ছি দ্রত সময়ে উত্তরবঙ্গ থেকে আসা, উখিয়ার সকল ভাড়াটিয়াদের বিতাড়িত করোন। নয়লে আমাদের শান্ত উখিয়া অশান্তির নগরীর রুপ নিবে। কাজেই নিজে সচেতন হই, এবং অন্যকে সচেতন করি

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য