আড্ডাবাজি বন্ধ করতে বলায় সেচ্ছাসেবককে মারপিট

গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি
নাটোরের গুরুদাসপুরে আড্ডাবাজি বন্ধ করতে বলায় দেলোয়ার হোসেন নামে এক সেচ্ছাসেবককে মারপিট করেছে বখাটেরা ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের ওয়াবদা বাজারে দেলোয়ার হোসেন নাজিরপুর ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ওই ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যানও তিনি নাজিরপুর ইউনিয়নের একজন দায়িত্বপ্রাপ্ত সেচ্ছাসেবক এঘটনায় দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে গুরুদাসপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন
আহত দেলোয়ার হোসেন জানান, শ্যামপুর গ্রামের মজনু খার ছেলে লাল মিয়া, আব্দুর রহিমের ছেলে সেলিম হোসেন, ফেরদৌস আলীর ছেলে সবুজ আলী, মৃত বিরাম হোসেনের ছেলে মুনছের আলী এবং চন্দ্রপুর গ্রামের মৃত আশরাফ আলীর ছেলে রনি আহম্মেদ ওয়াবদা বাজারের নন্দকূজা নদীর পাশে বাঁশের চাটার ওপর গাদাগাদা করে বসে গল্প আড্ডা করতেছিল করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সেচ্ছাসেবক হিসাবে আমি অভিযুক্তদের করোনা ভাইরাস সংক্রান্ত বিষয়ে সচেতনতা মূলক কথা বলতে থাকি এসময় তারা ক্ষিপ্ত হয়ে আমাকে কাঠের ষ্ট্যাম্প কাঠের বাটাম দিয়ে মারপিট করে আমার কাছে থাকা নগদ লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেয় এসময় আমার ডাকচিৎকারে বাজারের লোকজন এগিয়ে এসে আমার প্রাণ রক্ষা করে পরে তারাই আমাকে উদ্ধার করে গুরুদাসপুর স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে  নিয়ে যায়
এবিষয়ে গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. মোজাহারুল ইসলাম জানান, অভিযোগ পাওয়া গেছে তদন্ত সাপেক্ষে অবশ্যই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য