নাটোরে গৃহবধু হত্যার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদন্ডাদেশ দিয়েছে আদালত


নাটোর প্রতিনিধি
নাটোরে গৃহবধু সখিনা হত্যার দায়ে স্বামী আফছার উদ্দিনের মৃত্যুদন্ডাদেশ  দিয়েছে ভারপ্রাপ্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত। বৃহস্পতিবার নাটোরের ভারপ্রাপ্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ সাইফুর রহমান সিদ্দিক এই আদেশ দেন। এ সময় অভিযুক্ত আফছার উদ্দিন আদালতে উপস্থিত ছিলেন।
জজ কোর্টের পিপি অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম জানান, ২০১২ সালের ১৬ আগস্ট নাটোর সদর উপজেলার লক্ষিপুর গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে আফছার উদ্দিন তার অসুস্থ স্ত্রী সখিনাকে চিকিৎসা করানোর নাম করে বাড়ী থেকে বের হন। এর পর ২৮ আগস্ট আফছার উদ্দিন একাকি বাড়িতে ফিরে আসেন। কিন্তু এ সময় তার সাথে সখিনা বাড়ি ফিরে না আসায় বাড়ির লোকজন সখিনার বিষয়ে আফছার উদ্দিনের কাছে জানতে চায়। তাদের চাপের মুখে স্ত্রীকে হত্যার কথা স্বীকার করে আফছার উদ্দিন। এ ব্যাপারে নিহত সখিনার ভাই দেওয়ান আলী বাদী হয়ে আফছার উদ্দিনকে অভিযুক্ত করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। মামলা দায়েরের পর পুলিশ আফছার উদ্দিনকে গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে। জিজ্ঞাসাবাদে আফছার উদ্দিন স্বীকার করে যে, তার সাথে বনিবনা না হওয়ায় সে তার স্ত্রীকে হত্যা করেছে। পরে তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী সদর উপজেলার কৈগাড়ি কৃষ্টপুর গ্রামের একটি পাট ক্ষেত থেকে সখিনার কঙ্কাল উদ্ধার করে পুলিশ। পরে এ ঘটনায় তদন্ত শেষে পুলিশ অভিযুক্ত আফছার উদ্দিনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে। মামলাটি বিচারের জন্য আদালতে এলে বিচারক সাক্ষ্য প্রমাণ গ্রহন শেষে অভিযুক্ত আফছার উদ্দিনের বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় তার বিরুদ্ধে মৃত্যুদন্ডাদেশ প্রদান করেন।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য