শীত পড়েছে পঞ্চগড়ে ; রাতে শীত দিনে কিছুটা গরম অনুভূত হচ্ছে


মো. কামরুল ইসলাম কামু পঞ্চগড়ঃ
 

হিমকণ্যা খ্যাত দেশের সর্ব উত্তরের জেলা পঞ্চগড়ে শীত পড়েছে।  শহর- গ্রামে সব জায়গায় শীত অনুভূত হচ্ছে। পাল্টে যাচ্ছে এ জেলার আবহাওয়া। এখানে এখন দিনে গরম ও রাতে শীত এবং সঙ্গে কুয়াশাও পড়ছে। মাঝে মধ্যে কুয়াশায় পুরো এলাকা ছেয়ে যাচ্ছে। সবুজ ঘাস ও গাছের পাতায় জমছে শিশিরের কণাসোমবার তেঁতুলিয়ায় আবারও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১২ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা চলতি মৌসুমে সারাদেশের মধ্যে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বলে জানিয়েছে তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্র।

আবহাওয়াবিদরা বলছেন, এটা প্রকৃতির বিরূপ প্রভাবের কারণে হচ্ছে। পঞ্চগড়ে হেমন্তের শুরু থেকেই দিনের বেলায় শান্ত বাতাস বইছে সর্বত্র।গাছে গাছে ফুটছে শিউলি, বকুলসহ নানা ফুল। মাঠে মাঠে বেড়ে উঠছে সবুজ ধান। বিস্তীর্ণ মাঠজুড়ে যেন সবুজ রং ঢেলে দিয়েছে প্রকৃতি।প্রতিনিয়ত বইছে হিমেল হাওয়া। সকালে পূর্ব আকাশ ফুঁড়ে উঠছে সূর্য। দিনে সর্বত্র গরম অনুভূত হচ্ছে।কিন্তু হঠাৎ করেই এ জেলার আবহাওয়ায় পরিবর্তন এসেছে। গত দুইদিন ধরে আবহাওয়ার এ পরিবর্তন দেখছেন এ এলাকার মানুষ।সারা দিন কড়া রোদ থাকলেও সন্ধ্যার পর শান্ত হয়ে আসছে প্রকৃতি। রাতে বইছে ঠান্ডা হাওয়া। সঙ্গে পড়ছে কুয়াশা ।

সদর উপজেলার জগদলের  মাঈনুল ইসলাম শীত পড়েছে , রাতে লেপ নিতে হচ্ছে। কুয়াশাও পড়ছে।আগাম শীতের কারণে লেপ-তোশক বানাতে ব্যস্ত হয়ে উঠেছেন এ অঞ্চলের মানুষ। লেপ-তোশকের দোকানে দিন দিন ভিড় বাড়ছে। শহরের শীতের কাপড়ের দোকানগুলোতেও ভিড় বাড়ছে।

পঞ্চগড় জেলা পরিবেশ পরিষদের সভাপতি ও সরকারি মহিলা কলেজের ভূগোল ও পরিবেশ বিদ্যা বিভাগের প্রধান মো. তোহিদুল বারী জানান, বাতাসের তাপমাত্রা দিন দিন কমে যাচ্ছে। তাপমাত্রা কমে যাওয়ার কারণে শীত নামছে। জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট হয়ে যাওয়ায় প্রকৃতি বিরূপ হয়ে যাচ্ছে।এ কারণে অসময়ে শীত কিংবা গরম পড়ছে। 

শীত মৌসুম আসতে আরও দেরি। কিন্তু রাতে শীত অনুভূত হচ্ছে। সকালে পাতায় শিশির কণা দেখা যাচ্ছে।তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম জানান, আজ পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১২ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস যা চলতি শীত মৌসুমের ও সারা দেশের মধ্যে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা।

গত রবিবারও দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৩ ডিগ্রি ছিল তেঁতুলিয়ায়। এবং দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩১.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিকে শীতবস্ত্রের দোকানগুলিতে কেনা কাটা বাড়ছে। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য