অসহায় শ্রমজীবি মানুষের পাশে স্কুল শিক্ষক শাহ আলম

জালাল উদ্দিন ,গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি                                      
নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার কৈডিমা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক শাহ আলম তার ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ৬ কেজি চাল, ৫০০ গ্রাম ডাল ও ১ কেজি আলু বিতরণ করেছেন। খাদ্য সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন নাটোর জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি স্থানীয় সংসদ সদস্য অধ্যাপক মো. আব্দুল কুদ্দুস। এছাড়াও চাপিলা ইউপি চেয়ারম্যান আলাল উদ্দিন ভুট্টু, জোয়ারী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, কৈডিমা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও চাপিলা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি সহসীন আলী, আওয়ামীলীগ নেতা নাসিরুজ্জামান, নুরুল ইসলাম প্রমুখ।
স্কুল শিক্ষক শাহ আলম অসহায় দরিদ্র, শ্রমজীবি অবহেলিত, মানুষের পাশে দাঁড়ানোই তার নেশা। তিনি স্কুল শিক্ষকের পাশাপাশি রাজনীতিতে যুক্ত রয়েছেন। তিনি বর্তমানে বড়াইগ্রাম উপজেলা আওয়ামীলেিগর দপ্তর সম্পাদক। শিক্ষকতার পাশাপাশি রাজনীতি করে মানবসেবা অংশ নিয়ে অসহায় মানুষের সেবা করে যাচ্ছেন।  মানুষের প্রতি তার অগাদ ভালোবাসায় আন্দাজ করা যায় সহসাই।
গ্রামের অসহায় দরিদ্র মানুষরা যখন দুবেলা দুমুঠো ভাত জোগাতে হিমশিম খাচ্ছে, তখন তাদের পাশে দাঁড়িয়েছে এই মানুষটি। কৈডিমা গ্রামের হতদরিদ্র ভ্যান চালক ইসমাইল হোসেন বলেন, এই কঠিন সময়ে ঠিকমত ভ্যান চালাতে পারছিনা। রাস্তায় মানুষজন কম। ভাড়া নেই বললেই চলে। এই সময়ে শাহ আলম ভাই চাল, ডাল, আলু, নিয়ে আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। সত্যি তিনি দরদী মানুষ।
শিক্ষক শাহ আলম বলেন- করোনাভাইরাস সচেতনতার কারনে সংকটে দেশ। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বাস্তবায়ন ও নাটোর ৪ আসন এর সংসদ সদস্য অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুসের আহবানে শ্রমজীবি মানুষদের মাঝে নিজ তহবিল থেকে শতাধিক পরিবারের মাঝে প্রত্যেক পরিবারকে ৬ কেজি চাল, ১ কেজি আলু, ৫০০ গ্রাম ডাল বিতরণ করা হয়েছে। দেশের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সাধ্যমত সকলকে পাশে দাঁড়ানোর নির্দেশ দিয়েছেন। তার আহবানে সাড়া দিয়ে নিজের দায়বদ্ধতা থেকে সাধ্যমত তিনিও সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। আগামীতে এধারা অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য